কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে

কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে। সরকারী জব পাওয়ার জন্য অনার্সে লেখাপড়া অবস্থায়ই চাকুরির প্রিপারেশন শুরু করতে হয় । অধিকাংশই পড়াশোনা সমাপ্ত করে চাকুরির জন্য প্রিপারেশন নিতে চায় যা তাকে হতাশায় ডুবিয়ে দেয়। সেশনজট, সময় মত পরীক্ষা না হওয়া প্রভৃতি কারনে শিক্ষাজীবন সমাপ্ত হতে চাকুরির বয়স পেরিয়ে যায় সেই সময় বয়স নিয়ে ধ্যান করে অধিকাংশই পড়াশোনায় ঝোঁক হারিয়ে ফেলে। তাছাড়া সুদীর্ঘ সময় ধরে পড়াশোনার কারনে জবের পড়াশোনায় অর্ধেকের বেশি স্টুডেন্টের ভিতরে অনিহা আসে, এইজন্য সময় থাকতে নিজেকে প্রস্তুত করুন সরকারী চাকরির জন্য। কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে। কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে।

রাষ্ট্রীয় চাকুরিতে সাধারনত বাংলা, ইংরেজী,অংক তার সাথে সাধারণ জ্ঞান বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়ে থাকে। বাংলা বিষয় থেকে ব্যাকরণ ও সাহিত্য,ইরেজি বিষয় হতে গ্রামার ও আদার্স , গণিত বিষয় হতে বীজগনিত, পাটিগনিত ও জ্যামিতি , সাধারণ জ্ঞান বিষয় হতে বাংলাদেশ , আর্ন্তজাতিক, খেলাধুলা ও ইতিহাস বিষয়ে প্রশ্ন করা হয়। এইখানে উল্লেখিত বিষয় গুলো ভালো ভাবে আয়ত্ব করলেই আপনার পরিকল্পনা নেওয়া হয়ে যাবে এবং সরকারি চাকুরির জন্য যে কোনো প্রতিযোগিতামূলক পরীক্ষায় ভালো করতে পারবেন।

চেষ্টা

বাংলাদেশ সরকারে চাকরি পেতে একজনকে নিজের ইচ্ছেমতো চেষ্টা করতে হয়। এটা নিশ্চিত যে আপনার চাকরি পাবার প্রক্রিয়াটি দক্ষতা, তথ্য এবং সঠিক দক্ষতা-সঙ্গতি সহজলভ্য তথ্যের উপর নির্ভর করবে।

প্রথমেই প্রয়োজনীয় তথ্য সংগ্রহ করতে হবে । বাংলাদেশ সরকারের চাকরি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি এবং বিভিন্ন সরকারী পত্রিকা, ওয়েবসাইট এবং বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে নিয়মিত চেক করা উচিত। সঠিক আপডেট ও বিস্তারিত তথ্য পেতে এখানে সক্ষম কমিউনিকেশন ক্ষমতা ছাড়াও বিভিন্ন প্রশাসনিক অফিসের সাহায্য নিতে পারেন।

তথ্য সংগ্রহের পরে প্রাথমিকভাবে যে করণীয় হলো, সরকারী চাকরি পরীক্ষা কোথায় হবে সেজন্য তথ্য নিয়ে নিবেন। প্রয়োজনে আপডেট করে পরীক্ষার তারিখ, সিলেবাস এবং চাকরির বিবরণীতা চেক করা যায় সরকারী ওয়েবসাইট এবং বিভিন্ন চাকরি ওয়েবসাইটে যেমন আমারজব ডট কম।

নিয়মিত ভাবে নিয়মিত চাকরি সার্কুলার দেখার পাশাপাশি, সেই চাকরির জনপ্রিয়তা আপনার চাকরির চ্যান্স বাড়াতে পারে যদি আপনিও যে রাষ্ট্রীয় ও আন্তর্জাতিক বিবিধ প্রাপ্তির প্রশিক্ষণে অংশগ্রহণ করে থাকেন। একইভাবে আপনার ভবিষ্যতে চাকুরীর সুযোগ বাড়ানোর জন্য বিদেশে চাকরির জন্যেও আবেদন করা যায়।

এছাড়াও সরকারি প্রতিষ্ঠান অথবা নিয়মিত পদের জন্য চাকরি সার্কুলার দেখে আপনি যদি স্বপ্নের চাকরিটি খুঁজতে না পারেন তবে সরকারি চাকরির জন্যে এমন পদ সংগ্রহ করুন যা আপনি পেতে পারেন। একবার অপরিচিত চাকরি করে আপনি পরবর্তীতে আপনার ইচ্ছেমতো সরকারী চাকরি খুঁজতে পারবেন।

বাংলা ব্যাকরণের প্রস্তুতি


সরকারি চাকুরির পরীক্ষায় অষ্টম ও নবম শ্রেনীর সিলেবাসকে অধিক গুরুত্ব দেয়া হয়ে থাকে । এইজন্য বাংলার ক্ষেত্রে অষ্টম ও নবম শ্রেণির ব্যাকরণ বোর্ড বইটা অনেক ভালো করে পড়তে হবে। সমাস, সন্ধি, কারক ও বিভক্তি, এক কথায় প্রকাশ, সমার্থক কিওয়ার্ড এই গুলো হতে প্রশ্ন আসবেই কোনো মিস হবেনা। বোর্ডে যে যে প্রশ্ন ব্যাকরণ থেকে এসেছে সেই গুলো পড়তে হবে পুরোপুরি সাথে নানারকম বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যাকরণ ভাগের সমাধান দেওয়া থাকে সেগুলো ও আয়ত্ব করার জন্য হবে।

আর ও ভালো প্রস্তুতির জন্য নিশ্চয়ই ধ্বনি তত্ত্ব, শব্দ গঠন ও প্রকরণ, পুরুষ, অনুসর্গ, উপসর্গ, বাক্য প্রকরণ ও রূপান্তর, ক্রিয়ার কাল, পদ, ধাতু, দাঁড়ি চিহ্ন, বাচ্য ও বচন, লিংগ, বাগ্ধারা, এগুলো পড়তে হবে । এই গুলোর বাহিরে বাংলা ব্যাকরণ হতে ভীষণ একটা প্রশ্ন আসবে না । এই অংশ বেশ ভালো ভাবে পড়লে বাংলা হতে সুন্দর মার্ক পাওয়া যাবে ।

বাংলা সাহিত্যের জন্য প্রস্তুতি


বাংলা বিষয়ের ক্ষেত্রে বাংলা সাহিত্যের জন্য প্রিপারেশন অতীব গুরুত্বপূর্ণ। ৬ষ্ঠ থেকে একাদশ শ্রেণির বাংলা বোর্ড বইয়ের সকল কবি পরিচিতি আর গল্প, কবিতার উৎস, পটভূমি কোন কবিতা কোন ছন্দে রচিত এসব একদম মুখস্ত করার জন্য হবে । কিন্তু নিমিত্ত গল্পটা সুন্দর ভাবে মার্কিং করে পড়লে মনে রাখা হবে। পদ্যের প্রবৃত্তি থেকে প্রায়ই প্রশ্ন আসে । বইয়ে প্রচুর ছড়া আছে আর সব গুলো কাব্যের প্রবৃত্তি মনেও রাখা যায় না ।
পিএসসি নির্ধারিত ১১ জন কবি-সাহিত্যিক
পিএসসি নির্ধারিত ১১ জন কবি-সাহিত্যিকগন হলেন- ১) বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় ২) ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর ৩) মাইকেল মধুসূদন দত্ত ৪ )মীর মশাররফ হোসেন ৫ ) রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ৬ ) দীনবন্ধু মিত্র ৭ )কাজী নজরুল ইসলাম ৮ ) জসীম উদ্দীন ৯ ) ফররুক আহমদ ১১ ) কায়কোবাদ এবং ১১ )বেগম রোকেয়া সাখাওয়াত হোসেন।

See also  20 tips on what to include in a CV
ইংরেজী

ইংরেজীতে দূর্বলতা নেই বাংলা মিডিয়ামে লেখাপড়া এরূপ শিষ্য খুজে পাওয়া কঠিন। বাংলাদেশী প্রত্যেক ছাত্রেরই ইংরেজী ভীতি আছে। একারণে ইংরেজীর ভয়কে জয় করতে হবে। খুবই Simple কতিপয় বিষয় যথাযথ ভাবে পড়লে ইংরেজী ডর থাকবেনা প্রার্থনা করা যায়। বিশেষ করে Noun, Verb, Adjective, Adverb, Preposition, Articles এই বিষয়বস্তু গুলোর সব পড়তে হবে ।

Change to– simple, Compound & Complex, Voice Change, Mood, infinitive, participle, gerund, Idioms & Phrases, Correct word, Synonym & antonym, vocabulary, Right form of verbs. মূলত এই গুলো পড়লেই প্রায় সব জবাব দিতে সরল হবে । নানা ধরনের টেকনিক রয়েছে ইংরেজী গ্রামার মনে রাখার জন্য এইজন্য বিচক্ষণ মাষ্টারের তত্তাবধানে হতে টেকনিকগুলো চমৎকার করে আয়ত্ব করতে হবে। ইংরেজী প্রশ্ন বিশ্লেষণ করলে দেখা যায় বেশ কয়েকটি প্রশ্ন ঘুরে ফিরে বার বার আসে একারণে পূর্বের প্রশ্নের নিয়ম অনুযায়ী পড়তে হবে।

ইংরেজী সাহিত্যের ক্ষেত্রে বিখ্যাত লেখক সাহিত্যকদের নাম, কবিতা, গল্প গ্রন্থ, নাটক, আদি যুগ, মধ্যযুগ, নোবেল বিজয়ী কবি সাহিত্যিকদের নাম মনে রাখতে হবে। ইংরেজি গ্রামারের সকল আইন খুঁটিনাটি ও ব্যাতিক্রম অংশগুলো জানতে হবে । বিশেষকরে Sentence, Parts of Speech, Tense, Voice, Narration, Gender, synonym, antonym, Participle, বিশেষ ধরনের কিছু Translation প্রভৃতি বহু মর্যাদা দিয়ে পড়তে হবে।

পাটি গণিতের প্রস্তুতি


বিগত প্রশ্নগুলোতে লক্ষ্য যায় সুনির্দিষ্ট কিছু অধ্যায়ের গণিত প্রশ্নপত্রে ঘুরে ফিরে আসে । ৪র্থ হতে ৯ম শ্রেণির গনিত বই সংগ্রহে রাখার চেষ্টা করবেন তার সাথে নিয়মিত প্রাক্টিস করার জন্য হবে । এটা সকল চাকুরির জন্য জরুরি।গণিতের ক্ষেত্রে লক্ষ্য যায় পাটি গণিত হতে লাভ-ক্ষতি,সুদ-কষা,পিতা-পুত্র,মাতা-কণ্যা,অনুপাত সমানুপাত,ঐকিক নিয়ম, সংখ্যার ধারণা, ল.সা.গু, গ.সা.গু. , ভগ্নাংশ, গড়, সময় ও গতিবেগ, দূরত্ব, বিধান ও মানসিক নৈপুন্যতা হতে প্রশ্ন আসে ।

বীজ গণিতের প্রস্তুতি
বীজ গণিতের ক্ষেত্রে বীজগাণিতীয় রাশির যোগ, বিয়োগ, গুণ, ভাগ, সূত্রের প্রয়োগ ও সূত্রাবলীর প্রমাণ, সরল সমীকরণ, উৎপাদকে বিশ্লেষণ, মান নির্ণয় হতে প্রশ্ন আসে। জ্যামিতির ক্ষেত্রে ত্রিভুজ, চতুর্ভুজ, রম্বস, সামন্তরিক, বৃত্ত ও জ্যামিতি বিষয়ের খুঁটিনাটি হতে প্রশ্ন আসে।

আন্তর্জাতিক বিষয়াবলীর প্রস্তুতি


সাধারণ জ্ঞানের ক্ষেত্রে আন্তর্জাতিক বিষয়াবলীর জন্য পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের কারেন্সি ও রাজধানীর নাম, বিখ্যাত প্রণালী, দেশ-বিদেশের জ্যেষ্ঠ ও বিখ্যাত নদী, খাল, বিখ্যাত স্থান, স্থাপনা, বৃহত্তম, ক্ষুদ্রতম, বন্দর, জলপ্রপাত, ইতিহাস সম্পর্কিত স্থান, অতীত বৃত্তান্ত জড়িত ঘটনাবলী, আবিষ্কার, পুরুস্কার, বিখ্যাত ব্যাক্তিদের উল্লেখ উপযুক্ত কর্ম, অবদান ও তাদের জীবনের সঙ্গে জড়িয়ে থাকা সাল থেকেই প্রশ্ন বেশি আসে । এজন্য উল্লেখিত বিষয়গুলো পরিষ্কারভাবে আয়ত্ব করতে হবে। নানারকম দেশের সমালোচিত প্রেসিডেন্ট ও প্রধানমন্ত্রীর নাম, বিভিন্ন সময়ে সংঘঠিত লড়াই সম্পর্কে জানতে হবে।

বাংলাদেশ বিষয়াবলীর প্রস্তুতি


সাধারণ জ্ঞান বিষয়ে বাংলাদেশ সম্পর্কে বাংলাদেশের আবির্ভাবের আগের প্রাচীন শাসনামল অর্থাৎ মোঘল আমল, ইংরেজ শাসন আমল, প্রাচীন সভ্যতার ইতিহাস প্রভৃতি পরিষ্কারভাবে জানতে হবে।

বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের ইতিহাস, ভাষা আন্দোলন, ১৯৫৪ বর্ষের নির্বাচন, ১৯৬৬ সালের ৬ দফা আন্দোলন, ১৯৬৮-৬৯ বছরের গণ অভ্যুত্থান, ১৯৭০ এর নির্বাচন, ১৯৭১ বছরের অসহযোগ আন্দোলন, ৭ ই মার্চের ইতিহাসজ্ঞ ভাষণ, স্বাধীনতা ঘোষণা,মুজিবনগর গর্ভনমেন্টের আকার ও কার্যাবলী,মুক্তিযুদ্ধের রণকৌশল,মুক্তিযুদ্ধে বৃহৎ শক্তিবর্গের ভূমিকা,পাক বাহিনীর আত্নসমর্পণ তার সাথে বাংলাদেশের অভ্যুদয় সম্পর্কে জানতে হবে।

তথ্য প্রযুক্তি

তথ্য প্রযুক্তি সাধারণ জ্ঞান বিষয়ের একটা অবিচ্ছেদ্য অংশ। সরকারি চাকুরীর ক্ষেত্রে ইনফরমেশন প্রযুক্তি টপিকের অংশ হতে বিশেষ করে প্রযুক্তি বিষয়ক প্রশ্ন আসে । একারণে কম্পিউটার শিক্ষা বইটা কালেক্ট করে টেকনোলজি বিষয় ডেটাগুলো পড়তে হবে । কম্পিউটারের ইতিহাস,কম্পিউটারের গঠন, হার্ডওয়্যার, সফটওয়্যার, বিভিন্ন অপারেটিং সিস্টেম, সোসাইল সাইট, বেচার সাইট, সাইবার নিরাপত্তা এবং এদের সঙ্গে যুক্ত ব্যাক্তি, নেটওয়ার্ক, সংখ্যা ধারনা, ডিভাইস, তথ্য যন্ত্রের লেটেস্ট উদ্ভাবন ও সংযোজন ইত্যাদি সম্পর্কে জানতে হবে ।

পরিশেষে

প্রতিযোগিতায় নিজেকে এগিয়ে রাখার জন্য এক্সামের প্রস্তুতিতে নানারকম ধরনের কৌশল তার সাথে পন্থা অবলম্বন করার জন্য হয়। এজন্য আলোচ্য আর্টিকেলটিতে কেমন করে পড়লে সরকারী চাকরি পাওয়া হবে সেই বিষয়ে বিস্তারি তুলে ধরেছি। আপনি যথাযথ ফলো করলে সরকারি জব পাওয়া আপনার জন্য অনেকটা সরল হবে। পাশাপাশি বেসরকারি চাকরি পাওয়ার ক্ষেত্রে অন্যদের তুলনায় আপনি অনেকটাই এগিয়ে থাকবেন।

কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে।

Career Counseling

কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে

কিভাবে পড়লে সরকারী জব পাওয়া হবে

আপনার মঙ্গল কামনায়

এই চাকরির জন্য প্রতিষ্ঠান আপনার কাছ থেকে কোন অর্থ চাইলে অথবা কোন ধরনের ভুল বা বিভ্রান্তিকর তথ্য দিলে আমরা দায়ী নয়। চাকরি পাওয়ার জন্য কোন ব্যাক্তি / প্রতিষ্ঠানকে অর্থ প্রদান করতে আমরা কাউকে উৎসাহিত করিনা। কোন প্রকার অর্থ লেনদেনের দায়িত্ব আমরা বহন করবো না।

Freshly
Spotlight